Ekattor Kantho Logo
About Us | Contuct Us | Privacy Policy
শিরোনাম
চার সমুদ্রবন্দরে সংকেত ৩, সারাদেশে বৃষ্টির সম্ভাবনা সৌদি প্রবাসীদের জন্য চলতি মাসেই বিমানের বিশেষ ফ্লাইট ভোলায় ইয়াবা ট্যাবলেটসহ মাদক ব্যবসায়ীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ ভোলায় বাংলাদেশ মানব কল্যাণ ফাউন্ডেশন (বিএমএফ)'র বৃক্ষরোপন কর্মসূচি অনুষ্ঠিত। পাপুল কুয়েতের নাগরিক হলে এমপি পদ বাতিল: প্রধানমন্ত্রী দেশে গত ২৪ ঘণ্টায় ৩৪৮৯ জনের করোনা শনাক্ত ভোলার ৬কেজি মাদকদ্রব্য গাজা সহ এক বৃদ্ধ মহিলা গ্রেফতার কালিশুরী-ধূলিয়া ব্রীজের দুই পাশের সংযোগ সড়ক মরণ ফাঁদে পরিনত ভোলায় ২ বছরের শিশুকে হত্যার অভিযোগে গ্রেপ্তার মা সাংবাদিক আজাদের বিরুদ্ধে দৈনিক সময়ের আলো পত্রিকায় মিথ্যা সংবাদ প্রকাশের প্রতিবাদে দৌলতখানে মানববন্ধন

গণধর্ষণের পর লাইভে এসে ধর্ষকেরা বলল, ফ্রেন্ডস কাল জেলে যেতে পারি


একাত্তর কন্ঠ

আপডেট সময়: ২৬ জানুয়ারী ২০২০ ৮:১৪ এএম:
গণধর্ষণের পর লাইভে এসে ধর্ষকেরা বলল, ফ্রেন্ডস কাল জেলে যেতে পারি

জন্মদিনের অনুষ্ঠানে ডেকে নিয়ে গাজীপুরে এক কিশোরীকে গণধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে। ধর্ষণের পর অভিযুক্ত চার তরুণ বিকৃত উল্লাস করে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভিডিও প্রকাশ করে। এ ঘটনায় কিশোরীর বান্ধবীসহ অভিযুক্ত চার বখাটেকে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব।

এদিকে মামলা প্রত্যাহার করতে জড়িতদের পরিবার থেকে হুমকি দেয়া হচ্ছে বলে অভিযোগ নির্যাতিতার স্বজনদের।

গত ১৫ জানুয়ারি রাতে শ্রীপুরের নয়নপুর এলাকায় নিজ বাসায় জন্মদিনের অনুষ্ঠানে কিশোরীকে ডেকে নেয় তাদের বন্ধু শরীফ হোসেন। এরপর শরীফ, তার বন্ধু ইমরান হাসান সুজন, শরিফ উদ্দিন মোল্লা ও আহসান হাসান মিলে মেয়েটিকে ধর্ষণ করে।

পরে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে একটি ভিডিও ভাইরাল করে তারা। যেখানে বিকৃত উল্লাস করতে দেখা যায় অভিযুক্তদের।

অভিযুক্তরা লাইভে এসে বলেন, ‘হাই ফ্রেন্ডস কাল হয়তো আমরা জেলে থাকতে পারি।

প্রতিবেশীদের একজন বলেন, ‘আমারও মেয়ে আছে। এ ঘটনার পর থেকে স্কুলে যেতে ভয় পাচ্ছে।

এমন ঘটনায় উদ্বেগ জানিয়েছেন এলাকাবাসী। দ্রুত বিচার দাবি করেন তারা।

এ ঘটনায় শ্রীপুর থানায় একটি মামলা করেন নির্যাতিতার মা। শনিবার সংবাদ সম্মেলনে র‌্যাব জানায়, ময়মনসিংহের ত্রিশালে অভিযান চালিয়ে অভিযুক্ত চারজনকেই গ্রেফতার করা হয়। এছাড়া ধর্ষণে সহায়তার অভিযোগে কিশোরীর এক বান্ধবীকে শ্রীপুর থেকে গ্রেফতার করে পুলিশ।

র‌্যাব-১ এর কোম্পানি কমান্ডার আবদুল্লাহ আল মামুন বলেন, ‘মেয়েটিকে নেশাজাতীয় দ্রব্য খাইয়ে অজ্ঞান করা হয়। এরপর ৪ জন মিলে তাকে গণধর্ষণ করে।’

এদিকে নির্যাতিতার স্বজনদের অভিযোগ, মামলা প্রত্যাহার করতে অভিযুক্ত বখাটেদের পরিবার থেকে হুমকি দেয়া হচ্ছে।


আপনার মন্তব্য লিখুন...

সত্য প্রকাশে নির্ভীককণ্ঠ
Top